Home / শিল্প-সাহিত্য / কবিতা / বাংলাদেশ কবি পরিষদ (বাকপ)- এর সেপ্টেম্বর তৃতীয় সপ্তাহ সেরা পাঁচটি কবিতা ঘোষণা।

বাংলাদেশ কবি পরিষদ (বাকপ)- এর সেপ্টেম্বর তৃতীয় সপ্তাহ সেরা পাঁচটি কবিতা ঘোষণা।

২৭/০৯/২০১৬ইং
#সেপ্টেম্বর_এর_তৃতীয়_সপ্তাহ_সেরা_পাঁচটি_কবিতা_ঘোষণা

—————————————————

বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম


প্রিয় কবি এবং পাঠকবৃন্দ,
বাংলা সাহিত্য বিকাশের পথকে মসৃণ করতে
“#বাংলাদেশ_কবি_পরিষদ_এক মহতি উদ্যোগে
কবি’দের লেখনী উৎকর্ষতা বৃদ্ধির জন্য সম্মানিত নির্বাচকমন্ডলী প্রতি সপ্তাহ বাকপের  সেরা কবিতার বিজয়ী কবি কে ঘোষণার  মাধ্যমে সম্মানিত করে আসছেন।

বাকপের নির্বাচক কমিটির দ্বারা নির্বাচিত সপ্তাহের ৫টি  সেরা কবিতা ও কবির নাম সহ নিম্নে দেওয়া হলোঃ
পরকীয়া কাল

মো: নূরুল গনী

তোমার চোখের চাতালে আমার চোখ বিঁধে থাকে-বিষকাঁটা
আর তুমি খুঁজতে থাকো আয়নায় -চোখের বালি !
একটা নির্বোধ সকাল বালিশ চাপা- দীর্ঘশ্বাস ছুটে যায়
ক্ষেপনাস্ত্রের মত-ফিরে আসে বুমেরাং, জানালায় ভারী পর্দা !
একটা কালো বিড়াল সীমানা পার হয় কাঁটাতার ডিঙ্গিয়ে
চোরকাঁটা চোখে তার-বিষ জ্বালা !
মুখোমুখি চোখের চাতালে হরিণ শাবক-ক্যাওড়া পাতার নরম স্বাদ
জমে থাকে জিহ্বার জমিনে ! বিকেলের আগেই বুঝি
রাত চলে আসে -উৎকন্ঠা ! বালিশের পিঠে ঘোড়সওয়ার !

চোখের চাতালে ঘুমের নদী,তবু বিষকাঁটা ঝুলে থাকে
পরকীয়া কাল !!

 photogrid_1474987610564

___________________________________=

এপিসোড-টুঃ নির্লজ্জতা

মোশ্ রাফি মুকুল

সেক্সপিয়র যখন রোমিও এ্যান্ড জুলিয়েট লিখে নাটকের লজ্জা ফাটিয়ে দিচ্ছিলো
এভোন শহরের সারিবদ্ধ নারী পুরুষ
নাট্যরসে বুদ হয়ে মন্ত্রমুগ্ধতায় মঞ্চেই
বসে থাকতো।
তারপরও এ্যানের ভালোবাসা পাবার বাসনায়
সেক্সপিয়র বসন্তের স্তনে
লিখে ফেলেছিলো
একগুচ্ছ ভয়ঙ্কর সুন্দর সনেটের ফুল।
মহাকাল দীর্ঘ হলে কালের ডিম্বাশয়ে
কবিরা হয়ে ওঠে কড়ির পুতুল,
মহাকাব্যিক সৌন্দর্যের বায়োপিক,
আসলে কবি হবার রসায়নটাই আলাদা ফ্লেভারের।

কবি হতে গেলে নাকি একটু বেশি রোমান্টিক হতে হয়!
তাজা রোমান্সের বরষায় ভিজাতে হয় ঋতুবতী কবিতাকে।
ফেসবুকের নীলাভ পৃষ্টায়
কবিতাদের দীর্ঘ লাইন,
আত্মপ্রস্থের বিজ্ঞাপনে নিজেই নিজের মডেল;
প্রত্যাশার পালকে মুখ গুজতে গুজতে
ফেসবুক এখন হয়ে উঠেছে
আমাদের হৃদয়ের হার্টবুক।
আমাকে তুচ্ছ করো হে বন্ধু!
আমাকে ফেসবুকীয় কবি বলে স্লাগ দিন,
আমাকে নির্লজ্জ বলুন প্রিয় পাঠক।
একুশের বই মেলায় বই বের হয়নি বলেই
কবিত্বের তকমাটা ঝুলে থাকে সীমান্তের কাঁটা তারে!

আসলে আমরা রোমান্স জানিনা,
আমিও রোমান্টিক হতে পারবো না কোনদিন।
কবিতা মেয়ের মন পাথর হলে-
আমিও কিনবো হীরক কাটার ছুরি,
আজও অলঙ্কারহীন বাক্য দিয়ে আঁকবো নির্লজ্জতার এপিসোড- টু।
জানিনা একি কবিতা লেখা-
নাকি কাগজের সম্ভ্রমে কলঙ্ক রেখা!
সেক্সপিয়র কতোটা কামুক ছিলো কে জানে,
তবে কারো কারো অভিযোগ
কবিরা কামনা কাতর হয়ে থাকে!

অথচ শব্দমাধুর্যে বিমোহিত প্রেমিক ঈশ্বর-
ভালোবেসে প্রতি রাতেই কবিতার যোনি থেকে
অবিশ্বাসের মমি চুরি করে!

photogrid_1474928261341

————————————————++

শরতের ভিন্ন রূপ

নিরঞ্জন রায়

আজ শরতের বুকে বেদনার গুমোট আস্তরণ
চিরায়ত মেজাজের সাথে বেমানান,
শরৎ কন্যার কান্নার ঢেউ প্রকাশিত বাতাসে;
পূবাকাশের সূর্যও তার বিরহে সায় দিয়ে আড়ালে।
একটা কুয়াশা কুয়াশা ভাব দিগন্ত বিস্তৃত সবুজের গা জুড়ে
গাছগুলো প্রাণহীন, অস্পষ্ট ছায়ামূর্তির মতো
ঘন কুয়াশার ওপারে।
চারপাশের বাড়ির উঠোনগুলো একেবারে জনশূন্য
শরৎ কন্যার বিরহে একাত্ম, ঘরের কোণে বিলাপে ব্যস্ত;
কোনো গৃহে লালিত পশুও চোখে পড়ে না
পাখিরা যেন শপথ নিয়ে নীড়েই কাটাবে প্রহর
অনশনে।
দু’ একজন প্রকৃতির অবুঝ সন্তান দূরের মাঠে
সবুজের সাথে মিলে একাকার—–,
নদীর বিস্তীর্ণ বালুচর জুড়ে কাশফুল গুলোও বিবর্ণ,
সিক্ত, ক্লান্তিতে নুয়ে পড়া
আমার মনটাও ভালো নেই, শরৎ কন্যার বিরহে আকুল।

photogrid_1474928449225

_____________________________________

মানব ইতিহাসে পরাজয় নেই   
 নাজমুল হক পথিক
প্রত্নতাত্ত্বিকের মতো সব খুঁড়ে খুঁড়ে আমি দেখবো

মানুষের রক্তে, প্রেম জন্ম আর মৃত্যুতে,
পৃথিবীর সব সৌন্দর্য ছিঁড়ে ফুঁড়ে
আত্মার খোলস খুলে
হৃৎপিন্ড আর ফুসফুসের ভেতর থেকে
মিথ্যার নীল পর্দা ছিঁড়ে ।
মধ্যরাতের নিস্তব্ধ এভেন্যুতে দাঁড়িয়ে আছি
সার্কাসের আহত বাজিকর যেন আমি ।
আজ পৃথিবীতে প্রেম অল্পায়ু নিয়ে আসে
ভালোবাসাতেও নেই কোন প্রেরণা
কবর খোঁড়া অন্ধকারে লুটে পুটে খায়
শ্রম ও ঘামে ভরা মানুষের হৃদয় ।
প্রতিটি মৃত্যুর স্তর ভেদ করে নির্মল প্রেম চেয়েছি ।
আমার নষ্ট উত্তরাধিকারেরা খেলা করে
পতিতার গৃহে সারাদিন ।
নষ্ট শব বাহকেরা মনস্তাপে নির্বাসনে গেলে
মানুষের প্রতিশ্রুতি নিয়ে আসবো
রক্ত আর ফাঁকি ভুলে ।
বিষন্ন খড়ের শব্দে জীবনকে সাজাবো
তৃষ্ণা আর শুভ্র আকাঙ্খার মতো ।
ফুটপাতে সারাদিন হেঁটে হেঁটে
স্লোগানের মতো অস্থির হয়ে
প্রণয়ীর আঁচলের ঘ্রাণ নেব ।
মানুষের ইতিহাসে কোন পরাজয় নেই
মানুষ‌ের অভিজ্ঞতাই এরকম
যুগে যুগে তার জয় হয় জীবন্ত প্রতীক হয়ে
জীবনের সমস্ত প্রেরণা নিয়ে ।

photogrid_1474927804022

_________________________________________

প্রেম নেই কোথাও

ডঃ সুজাতা ঘোষ

সব কিছু কেমন ধোঁয়াশা আবছা আর কালো
দম বন্ধ করা ছাঁদের কার্ণিশে একলা যখন বসি
বহুদূরের সন্ধ্যে নামা সূর্যের লাল রঙটাও গুমোট।

আর একবার কি তবে ঝড় উঠবে নতুন করে?
কালো উড়ে হবে ঝরনা পাত আর শীতল!
আমি কি পারবো আবার হাসতে একলা?

নাম না জানা পাখিগুলো বোধ হয় ডানা ঝাপটালো
লেগে থাকা জল মুক্ত হয়ে ছড়িয়ে পড়ল আমার ঠোঁটে।
আবার কি ঠোঁট দুটো গোলাপি হবে নতুন করে?

অনেক কিছু মনে করতে চাই যা হারিয়ে গেছে বহুদিন
ধুলো সরিয়ে স্মৃতিগুলো এখন বড্ড এলোমেলো।
উষ্ণতা হারিয়েছে বহু দূরে গঙ্গার ওপারে।

যে পুরুষগুলো ঘুরে বেড়াত মিথ্যা প্রেমিকের সাঁজে
আজ তারাও হারিয়েছে স্মৃতির অতলে
ঘৃনাও বোধ হয় কম হয়ে যায় বহু পুরনো হলে।

সূর্যের কামড়ে তামাটে হয়ে আসা আমার সাদা রঙ
বহু জন্মদিনের ভারে সাদা হওয়া কালো কেশ
স্মৃতির পতনে দৃষ্টি ক্ষীণ হওয়া কৃত্রিম চোখ দুটি।

প্রেম বলতে এখন শুধু ওষুধের বোতল আর জ্ঞান।
প্রাচুর্যের এক কোনায় বসে মৃত্যুর জন্য অপেক্ষা করা
ঠাণ্ডা নেশা ধরা হাওয়ার পা ছুঁয়ে যাওয়া।

তার হাত ধরে লেকের ধারে সূর্যাস্ত দেখা
বৃষ্টিতে ছাতা মাথায় স্কুলে যাওয়া
কলেজ পালিয়ে সিনেমার প্রথম শো!

না, কিছু নেই আর।
কিছু নেই।
প্রেম নেই কোথাও, কোথাও নেই।

photogrid_1474928137754

About Khorshed Alam

আরও দেখুন

22788791_290912191402175_8949463939259069467_n

বাংলাদেশ কবি পরিষদ (বাকপ)-এর সাক্ষাতকার পর্ব-১৩ কবি দীলিপ দাশ

আজকের কবিঃ কবি দীলিপ দাশ, সাক্ষাতকার গ্রহণেঃকবি সাজিব চৌধুরী ।    আজকের কবিঃ কবি দীলিপ দাশ, …

Leave a Reply